সাংবাদিকদের করোনা পরীক্ষার ব্যবস্থা করেছে কলকাতা প্রেস ক্লাব, নমুনা দিতে হবে স্কুল অব ট্রপিক্যাল মেডিসিনে

রাজনীতি-সামাজিক

দীপক মুখার্জী : কোলকাতা মহানগর ও প্রত্যন্ত এলাকায় কর্মরত সাংবাদিকদের জন্য করোনা টেষ্টের ব্যাবস্থা করেছে কোলকাতা প্রেসক্লাব।
যে সমস্ত সাংবাদিকরা করোনা মহামারী পরিস্থিতিতেও জীবনের ঝুঁকি নিয়ে খবর সংগ্রহ করতে হচ্ছে, এমনকি সংবদনশীল এলাকায়ও তাদেরকে যেতে হচ্ছে, এই সকল সাংবাদিকদের জন্য কলকাতা প্রেস ক্লাব করোনা পরীক্ষার ব্যাবস্থা বব্য়বস্থা করেছে।

জানা গেছে, কলকাতা প্রেসক্লাবের আবেদনের প্রেক্ষিতে রাজ্য সরকার এই উদ্যোগে গ্রহণ করে। সেই অনুযায়ি কলকাতার স্কুল অফ ট্রপিক্যাল মেডিসিনে করোনা পরিক্ষার জন্য প্রতিদিন দুপুর ১২টা থেকে ১৫ জন করে সাংবাদিকের লালারসের নমুনা সংগ্রহ করা হবে। এই সুবিধা গ্রহণের জন্য সাংবাদিক ও চিত্র সাংবাদিকরদের নিজ নিজ সংস্থার কর্মাধ্যক্ষ স্বাক্ষরিত একটি তালিকা প্রেস ক্লাবের ই মেইল-এর মাধ্যমে পাঠানোর জন্য অনুরোধ করা হচ্ছে। ওই মেইল আইডিটি হল: [email protected]
টেস্টের জন্য প্রত্যেককে সঙ্গে আধার কার্ড নিয়ে যেতে হবে। নিজের আধার নম্বর উল্লেখ করলেও হবে। লালারসের নমুনা নেওয়ার পরে রিপোর্ট পেতে দু’তিন দিন সময় লাগবে। স্বাস্থ্যভবন থেকে কলকাতা প্রেস ক্লাবে এসে পৌঁছবে রিপোর্ট। যদি পজিটিভ সংক্রমণ পাওয়া যায় তাহলে জানিয়ে দেওয়া হবে। যে সব সাংবাদিকরা সরাসরি করোনা সংবেদনশীল এলাকায় যাচ্ছেন, তাঁদেরই অগ্রাধিকার দেওয়া হবে এই টেস্টের জন্য।

কিছু দিন আগেই খবর এসেছিল, করোনায় সংক্রামিত হয়েছেন মুম্বইয়ের ৫৩ জন সাংবাদিক। বেশ কয়েক জন সাংবাদিক খবর সংগ্রহ করতে মুম্বইয়ের কিছু হটস্পটে গেছেন বলে জানতে পারে সম্প্রতি তাঁদের করোনা পরীক্ষা করানোর বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিয়েছিল মহারাষ্ট্র সরকার। তার পরেই বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমের ১৬৭ জন সাংবাদিক ও আলোকচিত্রীর শারীরিক পরীক্ষা করানো হয়। এর ফলাফল প্রকাশ পেতে দেখা যায়, ৫৩ জন সাংবাদিকের শরীরে করোনার জীবাণু বাসা বেঁধেছে!

মহারাষ্ট্রের এই ঘটনা সামনে আসার পরেই সারা দেশের সাংবাদিক মহলেই ব্যাপক আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।। জরুরি পরিষেবার অন্তর্গত হলেও সেই নিরাপত্তা ও সুবিধা সাংবাদিকরা কোনও দিনই পান না বলে এমনিতেই ক্ষোভ রয়েছে এই পেশার অনেকের। বেশির ভাগ সময়েই সাংবাদিকদের প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে খবর সংগ্রহ করতে হয় । কিন্তু সেই ক্ষেত্রে তাদের ব্যাপারে গুরুত্ব দেওয়া হয় না অনেক সময়েই।

তাই সাংবাদিকদের করোনা পরীক্ষার জন্য কলকাতা প্রেসক্লাবের এই উদ্যোগে নেয়াটা সাংবাদিক মহলে প্রশংসার দাবি রাখে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *