পিকের ‘ভুলে’ পিছিয়ে মমতা, এগিয়ে বাম ছাত্র সংগঠন

রাজনীতি-সামাজিক

কোটায় আটকে পড়া রাজ্যের ছাত্রছাত্রীদের ফিরিয়ে আনার দাবিতে মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি দিল বাম ছাত্র সংগঠন আইসা। উত্তর প্রদেশের যোগী সরকার ইতিমধ্যে বাস পাঠিয়ে সেরাজ্যের আটকে পড়াদের রাজ্যে ফিরত নিয়ে গিয়েছে।

মুখ্যমন্ত্রীকে দেওয়া চিঠিতে আইসা জানিয়েছেন রাজস্থানের কোটায় আটকে পড়েছে এরাজ্যের প্রায় হাজার ছাত্রছাত্রী। তাঁদের ফিরিয়ে আনতে এবং পর্যাপ্ত খাদ্যের দাবিতে মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি দিয়েছে তারা। এই ছাত্র সংগছন জানিয়েছে, রাজস্থানের আইসার সাথীরা আটকে পড়া ছাত্রছাত্রীদের কাছে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা করেছে।
প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষার জন্য কোচিং ক্যাপিটাল হয়ে উঠেছে রাজস্থানের কোটা। সেখানেই আটকে পড়েছেন বিহারের বহু ছাত্র। এবার সেই আটকে পড়াদের নিয়েই মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমারকে আক্রমণ করেছেন প্রশান্ত কিশোর।
এর আগে নীতীশ কুমার কোটায় আটকে পড়া ছাত্রদের ফিরিয়ে আনা প্রসঙ্গে জানিয়েছিলেন, যদি লকডাউনে ওদের ফিরিয়ে আনা হয়, তাহলে তা হবে লকডাউনের মর্যাদার বিরুদ্ধে। কিন্তু এরই মধ্যে নওয়াদার এক বিজেপি বিধায়ক তাঁর ছেলেকে ফিরিয়ে এনেছেন। যা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন প্রশান্ত কিশোর। তিনি বলেছেন এব্যাপারে কোথায় গেল নীতীশ কুমারের মর্যাদা।

এক্ষেত্রে পশ্চিমবঙ্গের বিরোধীদের প্রশ্ন প্রশান্ত কিশোর বিহারের মুখ্যমন্ত্রীকে কোটায় আটকে থাকা ছাত্রছাত্রীদের ফিরিয়ে আনতে বলছেন, কিন্তু তিনি পরামর্শদাতা হিসেবে কি পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীকে একবারও সেকথা বলেছেন?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *