করোনায় সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী নাসিম এবং ধর্ম প্রতিমন্ত্রী আবদুল্লাহ’র মৃত্যু

বাংলাদেশ

নিজস্ব প্রতিনিধি, ঢাকা: বাংলাদেশের সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মাদ নাসিম এমপি এবং ধর্ম প্রতিমন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা এডভোকেট শেখ আবদুল্লাহ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন। শনিবার সকালে নাসিম এবং রাতে মারা যান আবদুল্লাহ। গত ১ জুন রক্তচাপজনিত কারণে হাসপাতালে ভর্তি হন নাসিম। ওইদিন টেস্ট করার পর করোনা শনাক্ত হয়। এদিকে ধর্ম প্রতিমন্ত্রীও কয়েকদিন ধরে কাশি ও শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন। শনিবার রাতে হাসপাতালে যাওয়ার পথেই তিনি মারা যান। মৃত্যুর পর নমুনা পরীক্ষা করে করোনা পজিটিভ পাওয়া যায়।

জানা যায়, আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মোহাম্মাদ নাসিম বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। করোনা পজিটিভ শনাক্তের পর সেখানেই চিকিৎসা চলছিল। এরই মধ্যে মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ দেখা দিলে জরুরী ভিত্তিতে অস্ত্রপচার করা হয়। প্রায় ১৩ দিন ধরে চিকিৎসা শেষে ওই হাসপাতালের আইসিইউতে নাসিম মারা যান। রোববার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বনানী কবরস্থানে রাষ্ট্রিয় মর্যাদায় দাফন করা হয়।

ধর্ম প্রতিমন্ত্রী এডভোকেট শেখ আবদুল্লাহ শনিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে শ্বাসকষ্টজনিত কারণে হাসপাতালে নেওয়ার পথে গাড়িতে অচেতন হয়ে পড়েন। হাসপাতালে পৌঁছানোর পর ডাক্তার মৃত ঘোষণা করেন। রোববার সকালে পরীক্ষা করে করোনা পজিটিভ ছিলেন বলে হাসপাতাল থেকে জানানো হয়।

ক্ষমতাসীন দল আওয়ামীলীগের বর্ষিয়ান দুই নেতার আকষ্মিক মৃত্যুতে শোকে মুহ্যমান বাংলাদেশ। শোক জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ, প্রধামন্ত্রী শেখ হাসিনা, স্পীকার শিরিন শারমীন চৌধুরী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আবদুল মোমেন, প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী ইমরান আহমেদসহ আরও অনেকে। সোস্যাল মিডিয়ায় শোক জানিয়েছেন দেশ বিদেশের বিভিন্ন শ্রেণী পেশার হাজারো মানুষ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *